Tuesday, December 15, 2015

Bangladesh Khelafat Andolon Condemned Attack on ISKCON Temple in Dinajpur

Joint Statement by Secretary General Maulana Muhammad Zafarullah Khan and  Minority Affairs Advisor Shree Sanjeeb Chowdhury of Bangladesh Khelafat Andolon (Bangladesh Khelafat Movement):-

We are unequivocally expressing our condemnation of the cowardly attack by  miscreants on ISKCON (International Society for Krishna Consciousness) Temple in Kaharol Upazila of Dinajpur district in Bangladesh on Thursday, 10 December 2015 night. This dastardly attack proved once again that the conspiracies hatched by the unscrupulous quarters of home and abroad to destroy the prevailing communal harmony in Bangladesh have never been ceased. In recent times, four such attacks occurred in Dinajpur district alone. Several persons were injured, none  was killed in these attacks. Yet these heinous incidents can not be taken lightly.

It is definitely a matter of pride and glory for us that due to the constructive roles played by our religious clergies and spiritual leaders, the venomous elements of communal conflicts did not find favorable environment to spread far and wide in Bangladesh. Nevertheless, the poisonous hands of the assailants are exerting the utmost efforts to tear apart our collective peace, communal harmony and national security. At this critical juncture, all of us irrespective of our religious and communal identities have to be firmly united to decisively defeat these evil forces. All of us are aware that, in the context of the prevailing world situation, the Muslims worldwide are subject to multifarious suspicions. The evil intention of imposing the entire responsibilities of the mysterious offences committed by a handful of perverted, crocked and greedy so-called Muslims on the shoulders of 1.5 billion followers of holy and peaceful religion Islam is vividly visible. Whereas, there is serious doubt whether the remarkable portion of these terrorist elements are Muslims at all.



In this context, the religious scholars have to play pioneering role in the collective efforts to keep Bangladesh free from these menaces. If the religious scholars and spiritual leaders actively pursue the concerted efforts to destroy the ongoing local and foreign conspiracies hatched in the name of so-called religion, we strongly believe that the entire nation will come forward and join them. It is not the time to discharge responsibilities merely by issuing statements sitting at home. We have to be active relying on the help of Allah the Almighty, become united and vigilant to defeat and dismantle these evil forces.

Comments may be sent by e-mail to: 
bkandolon@gmail.com

Monday, December 14, 2015

Congratulations to the President of Gambia for officially declaring Gambia as an Islamic Republic

Ameer-e-Shariah Hafez Maulana Shah Ata Ullah and Secretary General Maulana Muhammad Zafarullah Khan of Bangladesh Khelafat Andolon i.e. Bangladesh Harkatul Khelafat hereby congratulates Gambian President Yahya Jammeh and his government and nation for officially declaring Gambia as an Islamic Republic. 

We think the declaration is consistent with global Islamic renaissance and post-colonial western behavior. 

Friday, December 11, 2015

দিনাজপুরে ইসকন মন্দীরে হামালার নিন্দা : বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের মহা-সচীব মওলানা মুহাম্মদ জাফরউল্লাহ খান এবং সংখ্যালঘু বিষয়ক কেন্দ্রীয় উপদেষ্টা শ্রী সঞ্জীব চৌধুরীর যুক্ত-বিবৃতি

Darul Khelafat, 314/2 J.N Shaha Rd., Lalbagh Kellar Morr, Dhaka-1211, Bangladesh 
Markazul Khelafat, Jamia Nooria Islamia, Kamrangirchar, Dhaka-1211, E-Mail: bkandolan@gmail.com

দিনাজপুরে ইসকন মন্দীরে হামালার নিন্দা

বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের মহা-সচীব মওলানা মুহাম্মদ জাফরউল্লাহ খান এবং সংখ্যালঘু বিষয়ক কেন্দ্রীয় উপদেষ্টা শ্রী সঞ্জীব চৌধুরীর যুক্ত-বিবৃতিঃ-

ঢাকা, শুক্রবার, ১১ই ডিসেম্বর ২০১৫
বৃহস্পতিবার রাতে (১০ই ডিসেম্বর ২০১৫) দিনাজপুরের কাহারোল উপজেলায় আন্তর্জাতিক কৃষ্ণ ভাবনামৃত সংঘের মন্দীরে (ইসকন মন্দীর) দুবৃত্তদের কাপুরুষোচিত হামলার আমরা দ্ব্যার্থহীন ভাষায় তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি।  এই হামলা আবারো প্রমাণ করল যে বাংলাদেশে বিরাজমান সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি নষ্ট করার দেশী-বিদেশী চক্রান্ত থেমে নেই। সাম্প্রতিককালে শুধু দিনাজপুর জেলাতেই এধরণের ৪টি হামলার ঘটনা ঘটেছে।  দিনাজপুরে এসব হামলায় কয়েকজন আহত হলেও কেউ নিহত হননি।  কিন্তু কেউ মারা যাননি বলে ঘটনাগুলিকে খাটো করে দেখার সুযোগ নেই।

আমাদের জন্য এটি গৌরবের বিষয় যে ওলামা-মাশায়েখদের দ্বায়িত্বশীল ভূমিকার কারণে বাংলাদেশে ধর্মীয় সংঘাতের বিষবৃক্ষ কোন দিন ডালপালা বিস্তারের অনুকূল পরিবেশ পায়নি।  তা সত্ত্বেও বর্তমানে আততায়ীর কালো হাত  আমাদের শান্তি, সম্প্রীতি নিরাপত্তা ছিন্নভিন্ন করার জন্য উঠে পড়ে লেগেছে।  তাদেরকে পরাস্থ করার জন্য আমাদের সবাইকে ধর্মীয় জাতিগত পরিচয় নির্বিশেষে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।  একথা সবাই জানি, আজ বিশ্বপরিস্থিতিতে মুসলমানরা বহুমুখী সন্দেহ দ্বারা আক্রান্ত।  পথভ্রষ্ট, বিভ্রান্ত প্রলুব্ধ গুটিকয়েক মুসলমানের রহস্যজনক অপকর্মের দায় পবিত্র ইসলাম ধর্মের অনুসারী দেড় কোটি মানুষের উপর চাপানোর চেষ্টা অত্যন্ত স্থুলভাবে দৃশ্যমান।  অথচ এইসব সন্ত্রাস সৃষ্টিকারীদের একটা উল্লেখযোগ্য অংশ আদতেই মুসলমান কিনা তা নিয়ে গুরুতর সন্দেহ রয়েছে।

এই পটভূমিতে বাংলাদেশকে নিরুপদ্রোপ রাখার ঐক্যবদ্ধ চেষ্টায় আলেম সমাজকে অগ্রনী ভূমিকা পালন করতে হবে।  এদেশের ওলামা-মাশায়েখ যদি একজোট হয়ে তথাকথিত ধর্মের নামে চলমান দেশী-বিদেশী ষড়যন্ত্র ভন্ডুল করতে সক্রিয় হন, তাহলে গোটা জাতি তাঁদের সংগে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে এগিয়ে আসবে বলে আমরা বিশ্বাস করি।  আজ শুধু ঘরে বসে বিবৃতি দিয়ে দায় সারার সময় নয়। আল্লাহর উপর ভরসা করে সক্রিয় হতে হবে, ঐক্যবদ্ধ হতে হবে, এবং চারিদিকে সতর্ক দৃষ্টি রেখে অপশক্তিকে অকার্যকর করার জন্য মাঠে নামতে হবে।   


প্রেরকঃ কাজী আজীজুল হক 
ফোনঃ ০১৮১৯৪০৭৯৬৩, ৮৪১১৪৩৬ 
e-mail: bkandolan@gmail.com